সিরাজগঞ্জে বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা পেল তিন স্কুল ছাত্রী

22

স্টাফ রিপোর্টার সিরাজগঞ্জঃ সোনারদেশ২৪:

সিরাজগঞ্জের বেলকুচিতে একই রাতে বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা তিন স্কুল ছাত্রী। শুক্রবার বিকাল থেকে রাত পর্যন্ত উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে এ বাল্যবিয়েগুলো বন্ধ করা হয়।

বেলকুটি উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আনিসুর রহমান অভিযান চালিয়ে এই তিনটি বিয়ে বন্ধ করেন।

বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা পেল যারা, বেলকুচি উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের আগুরিয়া গ্রামের দশম শ্রেণীর ছাত্রী (১৫), দৌলতপুর ইউনিয়নের কান্দাপাড়া গ্রামের দশম শ্রেণীর ছাত্রী (১৫), ধুকুরিয়া ইউনিয়নের ধুকুরিয়া বেড়া গ্রামের দশম শ্রেনীর ছাত্রী (১৬)।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আনিসুর রহমান জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুক্রবার বিকাল হতে গভীর রাত পর্যন্ত বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে বাল্যবিয়ে বন্ধ করা হয়। তিনটি বাল্যবিবাহেই কনে অপ্রাপ্তবয়স্ক। বাল্যবিবাহগুলো বন্ধ করে প্রত্যেক প্রযোজ্যক্ষেত্রে কনের বাবার কাছ থেকে কনে প্রাপ্তবয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত বিবাহ দিবেন না বলে মুচলেকা নেয়া হয়।

তিনি আরও বলেন, বর ও কনের অভিভাবকদের কাছ থেকে মোট পয়ত্রিশ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।

বাল্যবিবাহগুলো বন্ধে সহযোগিতা করেন পেশকার মো. হাফিজ উদ্দিন, বেলকুচি থানা পুলিশের সদস্যবৃন্দ,আনসার সদস্যবৃন্দ ও গ্রাম পুলিশের সদস্যবৃন্দ।

You might also like