কৃষ্ণাঙ্গকে গুলি করা পুলিশ কর্মকর্তার পরিচয় প্রকাশ

33

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ সোনারদেশ২৪:

যুক্তরাষ্ট্রের উইসকনসিনে গত রোববার জ্যাকব ব্লেক নামের এক কৃষ্ণাঙ্গকে গুলি করা পুলিশ কর্মকর্তার পরিচয় প্রকাশ করা হলো। ওই ঘটনার পর অঙ্গরাজ্যটির শহর কেনোশায় বুধবার (২৬ আগস্ট) পর্যন্ত টানা চারদিন ধরে চলছে ব্যাপক বিক্ষোভ-সংঘর্ষ।

উইসকনসিনের অ্যাটর্নি জেনারেল জশ কৌল গতকাল বুধবার বলেছেন, কেনোশায় চারদিন আগে রাস্টেন শেসকি নামের এক কর্মকর্তা গাড়ির দরজা খোলার সময় ব্লেকের পিঠে সাতটি গুলি করেন। সাত বছর ধরে তিনি কেনোশা পুলিশ বিভাগের সঙ্গে আছেন। কর্মকর্তারা তার গাড়ি থেকে একটি ছুরি উদ্ধার করেন বলে যোগ করেন তিনি, আর কোনও অস্ত্র পাওয়া যায়নি।

ব্লেককে গুলি করার পর থেকে পুরো শহরে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে। এখন তা সহিংস হয়ে উঠেছে। এই বিক্ষোভের মধ্যে মঙ্গলবার রাতে দুজনকে হত্যা করায় কাইল রিটেনহাউস নামের ১৭ বছর বয়সী এক কিশোরকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এই সহিংস বিক্ষোভে আরও একজন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গিয়েছে।

ব্লেক হাসপাতালে সুস্থ হয়ে উঠেছেন এবং তার জ্ঞান ফিরেছে। কিন্তু তিনি আদৌ কোনোদিন হাঁটতে পারবেন কিনা তা নিয়ে সংশয় রয়েছে আইনজীবীদের।

এই গুলির ঘটনায় চলমান তদন্ত নিয়ে কৌল আরও বলেছেন, ব্লেককে গ্রেপ্তারের চেষ্টার সময় প্রথমে টেসার গান ব্যবহার করেছিল পুলিশ। ব্লেক যখন দরজা খুলতে যান, তখন রাস্টেন তার পিঠে সাতটি গুলি করেন। কৌল বলেন, ‘আর কোনও কর্মকর্তা গুলি করেননি।’ গাড়ির চালকের ফ্লোরবোর্ড থেকে একটি ছুরি উদ্ধার করা হয়।

শহরে বর্তমান সহিংসা নিয়েও কথা বলেছেন অ্যাটর্নি জেনারেল। একে ‘জঘন্য’ বলেছেন কৌল। তার মতে, এই সহিংস বিক্ষোভে কিছু বহিরাগত যোগ দিয়েছে। তিনি বলেছেন, ‘তারা সবাই যা করছে তা হলে বিশৃঙ্খলা। কেনোশার বাসিন্দাদের উচিত শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ করা এবং যে পরিবর্তন তারা দেখতে চায় তার দাবি জানানো।’

You might also like