একদিনে মারা গেছেন আরো ৭ হাজার মানুষ

51

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ সোনারদেশ২৪:

গত ২৪ ঘণ্টায় নভেল করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে সারা পৃথিবীতে আরো প্রায় ৭ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে নতুন করে আরো সাড়ে চার লক্ষাধিক মানুষের শরীরে ভাইরাসটি শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে এই বৈশ্বিক মহামারীতে মৃতের সংখ্যা ১১ লাখ সাড়ে ৭১ হাজারের কাছাকাছি। সরকারি হিসেবে, মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪ কোটি সোয়া ৪২ লাখ ছাড়াল।

পরিসংখ্যানভিত্তিক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটার’র তথ্য মতে, আজ ২৮ অক্টোবর, বুধবার সকাল সোয়া ৯টা পর্যন্ত সারা পৃথিবীতে করোনায় আক্রান্ত বেড়ে ৪ কোটি ৪২ লাখ ৩৬ হাজার ৭৪৭ জনে দাঁড়িয়েছে। এদের মধ্যে ১১ লাখ ৭১ হাজার ৩০৮ জন ইতোমধ্যে মৃত্যুবরণ করেছেন। বিপরীতে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৩ কোটি ২৪ লাখ ৪৪ হাজার ৪৩ জন। বর্তমানে চিকিৎসাধীন আছেন ১ কোটি ৬ লাখ ২১ হাজার ৩৯৬ জন করোনারোগী, যাদের মধ্যে ৭৯ হাজার ৯২২ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে এখন পর্যন্ত পৃথিবীর সর্বোচ্চ ৯০ লাখ ৩৮ হাজার ৩০ জন মানুষের শরীরে করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। ভারতে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৭৯ লাখ ৮৮ হাজার ৮৫৩ জনের শরীরে ভাইরাসটির উপস্থিতি ধরা পড়েছে। ব্রাজিলে তৃতীয় সর্বোচ্চ ৫৪ লাখ ৪০ হাজার ৯০৩ জনের শরীরে সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। এছাড়া রাশিয়ায় চতুর্থ সর্বোচ্চ ১৫ লাখ ৪৭ হাজার ৭৭৪ জন ও ফ্রান্সে পঞ্চম সর্বোচ্চ ১১ লাখ ৯৮ হাজার ৬৯৫ জনের কোভিড-১৯ ধরা পড়েছে।

শীর্ষ দশে থাকা অন্য দেশগুলো হলো—স্পেন (১১ লাখ ৭৪ হাজার ৯১৬ জন), আর্জেন্টিনা (১১ লাখ ১৬ হাজার ৬০৯ জন), কলম্বিয়া (১০ লাখ ৩৩ হাজার ২১৮ জন), যুক্তরাজ্য (৯ লাখ ১৭ হাজার ৫৭৫ জন) ও মেক্সিকো (৮ লাখ ৯৫ হাজার ৩২৬ জন)।

কোভিড-১৯ মহামারীতে সবচেয়ে বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। এখন পর্যন্ত দেশটিতে ২ লাখ ৩২ হাজার ৮৪ জনের প্রাণ কেড়েছে ভাইরাসটি। ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১ লাখ ৫৭ হাজার ৯৮১ জন। ভারতে তৃতীয় সর্বোচ্চ ১ লাখ ২০ হাজার ৫৪ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া মেক্সিকোতে চতুর্থ সর্বোচ্চ ৮৯ হাজার ১৭১ জন ও যুক্তরাজ্যে পঞ্চম সর্বোচ্চ ৪৫ হাজার ৩৬৫ জনের প্রাণ কেড়েছে করোনা।

এ হিসেবে শীর্ষ দশে রয়েছে—ইতালি (মৃত্যু ৩৭ হাজার ৭০০ জন), ফ্রান্স (মৃত্যু ৩৫ হাজার ৫৪১ জন), স্পেন (মৃত্যু ৩৫ হাজার ২৯৮ জন), পেরু (মৃত্যু ৩৪ হাজার ২৫৭ জন) ও ইরান (মৃত্যু ৩৩ হাজার ২৯৯ জন)।

এছাড়া কলম্বিয়ায় ৩০ হাজার ৫৬৫ জন (১১তম), আর্জেন্টিনায় ২৯ হাজার ৭৩০ জন (১২তম), রাশিয়ায় ২৬ হাজার ৫৮৯ জন (১৩তম), দক্ষিণ আফ্রিকায় ১৯ হাজার ৫৩ জন (১৪তম), চিলিতে ১৪ হাজার ২৬ জন (১৫তম), ইন্দোনেশিয়ায় ১৩ হাজার ৫১২ জন (১৬তম), ইকুয়েডরে ১২ হাজার ৫৮৮ জন (১৭তম), বেলজিয়ামে ১০ হাজার ৮৯৯ জন (১৮তম), ইরাকে ১০ হাজার ৭২৪ জন (১৯তম), জার্মানিতে ১০ হাজার ২৬৩ জন (২০তম), কানাডায় ১০ হাজার ১ জন (২১তম), তুরস্কে ৯ হাজার ৯৫০ জন (২২তম), বলিভিয়ায় ৮ হাজার ৬৭২ জন (২৩তম), নেদারল্যান্ডসে ৭ হাজার ১৪২ জন (২৪তম), ফিলিপাইনে ৭ হাজার ৫৩ জন (২৫তম), পাকিস্তানে ৬ হাজার ৭৫৯ জন (২৬তম), রোমানিয়ায় ৬ হাজার ৫৭৪ জন (২৭তম), মিসরে ৬ হাজার ২২২ জন (২৮তম), সুইডেনে ৫ হাজার ৯১৮ জন (২৯তম) ও বাংলাদেশে ৫ হাজার ৮৩৮ জন (৩০তম) করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন।

You might also like