বাগেরহাটে এনজিওকর্মীকে গণধর্ষণ: আদালতে ধর্ষকের জবানবন্দি

27

সোনারদেশ২৪: ডেস্কঃ

বাগেরহাটের ফকিরহাটে এনজিওকর্মীকে দলবেধে ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণের ঘটনায় গ্রেফতার ভ্যানচালক মামুন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

সোমবার বিকেলে সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. খোকন হোসেনের আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেয় আসামি ভ্যানচালক মামুন।

এদিকে বাগেরহাট সদর হাসপাতালে ওই নারীর ডাক্তারি পরিক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। শনিবার রাতে ফকিরহাট উপজেলার জারিয়া মাইট কুমড়া এলাকায় ওই এনজিওকর্মী বাসায় ঢুকে ৪ সন্ত্রাসী তাকে গণধর্ষণ করে। পাশের রুমে নিয়ে অপর এক পুরুষ এনজিওকর্মীর সাথে উলঙ্গ করে ভিডিও ধারণ করে নগদ অর্থ ও স্বণার্লকার নিয়ে যায়।

রোববার সকালে ওই এনজিওকর্মী ফকিরহাট থানায় চার জনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করেন। পুলিশ ওই দিন দুপুরে ফকিরহাটের জারিয়া মাইট কুমড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে মামুনকে আটক করে। এসময় তার কাছ থেকে উদ্ধার করা হয় গণধর্ষণের ভিডিওসহ একটি মোবাইল।

মামলায় মামুন ছাড়াও জারিয়া মাইট কুমড়া এলাকার রাজমিস্ত্রি ফিরোজ (২৮), দিনমজুর মুসা (২৬), ভ্যানচালক রাজুকে (২৯) আসামি করা হয়েছে।

ফকিরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু খায়রুল আনাম জানান, এনজিওকর্মীকে গণধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার ভ্যানচালক মামুন সোমবার দুপুরে দোষ শিকার করে ১৬৪ ধারায় আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। অন্য ৩ ধর্ষককে গ্রেফতার পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

You might also like