‘কঠিন’ নির্বাচন মনে করছেন সালাহউদ্দিন

36

ক্রীড়া ডেস্কঃ সোনারদেশ২৪:

শনিবার বাফুফের নির্বাচন। সবচেয়ে আকর্ষণীয় সভাপতি পদ। চতুর্থবারের মতো নির্বাচন করছেন বর্তমান সভাপতি কাজী সালাহউদ্দিন। টেনশনে রয়েছেন, নাকি টেনশন মুক্ত—কোনোটাই বলেননি তিনি। তবে নির্বাচনটা কঠিন হবে বলে মনে করছেন এই সাবেক তারকা ফুটবলার। তিনবারের মধ্যে কোনটি সবচেয়ে কঠিন তা প্রকাশ করতে গিয়ে সালাহউদ্দিন বলেন, ‘খেলোয়াড়ি জীবনে আমি কখনো প্রতিপক্ষকে ছোট করে দেখিনি। আমার কাছে বড় ক্লাব ছোট ক্লাব ছিল না। সবসময় প্রতিপক্ষকে গুরুত্ব দিয়েই মাঠে নেমেছিলাম।’

নির্বাচন ঘনিয়ে এসেছে বলে বাফুফে ভবনে সংবাদমাধ্যমের ভিড় বাড়ছে। অন্যান্য সময় সংবাদমাধ্যমকে এড়িয়ে গেলেও গতকাল বাফুফে সভাপতি সবাইকে খণ্ড খণ্ড সময় দিয়েছেন। নানা প্রশ্নেরও জবাব দিয়েছেন তিনি। এ সময় তার রুমে নির্বাচনের সমন্বয়কারী সামসুল হক চৌধুরী, সদস্য প্রার্থী মাহফুজা আক্তার কিরণ ও অন্যারা উপস্থিত ছিলেন।

সালাহউদ্দিন একই সঙ্গে সাউথ এশিয়ান ফুটবল ফেডারেশনের তিন বারের নির্বাচিত সভাপতি। দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর সঙ্গে লড়াই করে সভাপতি নির্বাচিত হওয়াটা কঠিন মনে হলেও সালাহউদ্দিনের কাছে সব নির্বাচনই সমান টেনশনের।

বছরজুড়ে সালাহউদ্দিনকে নিয়ে সমালোচনা হয়। কিন্তু কেন? জানতে চাইলে বাফুফে সভাপতি বলেন, ‘তারা টিভির টক-শোতে গিয়ে সামলোচনা করে। ফুটবলের কী কাজ করেছে দেখান। টক-শো ছাড়া দৃশ্যমান কিছু আছে? তিনি আরও বলেন, ‘এই সমালোচনাকে পৃষ্ঠপোষকতা করা হয়।’

বাফুফে ভবনের পাশেই সাবেক ফুটবলারদের সংগঠন। সালাহউদ্দিন বলেন, ‘আমি তাদের বলেছিলাম, আপনারা মাঠে আসেন অন্তত বাচ্চাদের নিয়ে কাজ করেন। কেউ কি করেছে।’

সালাহউদ্দিনের অনেক সমালোচকরাই তার সঙ্গে নির্বাচন করছেন। নির্বাচনের সময় ঐক্য থাকে। নির্বাচনের পর ঐক্য থাকে না কেন? সালাহউদ্দিনের সাফ জবাব, ‘আমি রাজনীতি করি না। আমার সিদ্ধান্ত সঠিক না হলে আমাকে বলুক। বাইরে গিয়ে বলার কি আছে।’

ফেডারেশন নিয়ে বাফুফে সভাপতি বললেন, ‘এখানে অন্যান্য কাজ ছাড়াও তিন-চারটা কাজ হচ্ছে ফেডারেশন কাপ, স্বাধীনতা কাপ, লিগ আয়োজন, জাতীয় দলের সমস্ত ফ্যাসিলিটিজ নিশ্চিত করা, জাতীয় দলের খেলা ছাড়াও বাড়তি কাজ হচ্ছে জেলাগুলোকে দেখাশোনা করা।’ যারা সালাহউদ্দিনের পরিবর্তন চান অথচ তারা সভাপতি প্রার্থী শফিকুল ইসলাম মানিককে সমর্থন দিচ্ছেন না। এই প্রশ্নে সালাহউদ্দিনের জবাব, ‘নো কমেন্টস।’

You might also like