শিরোনাম:

ঘুষ দিতে না পারায় মুভমেন্ট পাশসহ শতাধিক শ্রমিক আটক!

টিকিট না পেয়ে সোনারগাঁও হোটেলের সামনে সৌদিগামীদের বিক্ষোভ

হাসপাতালের ১১তলা থেকে লাফিয়ে পড়ে করোনা রোগীর আত্মহত্যা!

স্বর্ণের দাম বাড়ল

বনানী কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন কবরী

হবিগঞ্জে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি বোরো ধান ও চা শিল্পের জন্য আশীর্বাদ

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশিত : মার্চ ৭, ২০২১

সোনারদেশ২৪: ডেস্কঃ

হাওর, পাহাড় ও শিল্পের জেলা হবিগঞ্জে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হয়েছে। এ বৃষ্টি বোরো ধান ও চা শিল্পের জন্য আশীর্বাদ হয়ে এসেছে। কারণ, মার্চের মাঝামাঝি সময়ে চায়ের উৎপাদন শুরু হবে। এ সময়ে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টিতে চা বাগানে আনন্দ উল্লাস শুরু হয়েছে। শনিবার (৬ মার্চ) ভোর সকালে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হয়। রাত ৮টায় আবারো গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হয়েছে। কিছুটা বাতাস বইছে।

জানা গেছে, জেলার ৯টি উপজেলার মধ্যে মাধবপুর, চুনারুঘাট, নবীগঞ্জ, বাহুবল উপজেলায় রয়েছে পাহাড়ি এলাকা। এ পাহাড়ি এলাকাকে ঘিরে ছোট বড় মিলে ৪১টি চা বাগান গড়ে উঠেছে। এসব বাগানের বাসিন্দা প্রায় দেড় লাখ। এর মধ্যে স্থায়ী ও অস্থায়ী মিলে প্রায় ৩২ হাজার শ্রমিক চা পাতা উত্তোলনে জড়িত।

এ বৃষ্টিতে বিরাট উপকার হবে জানিয়েছেন বাগান মালিকরা। শুধু তাই নয়, জেলার বোরো ধান চাষিদের মুখেও হাসি ফুটেছে। কারণ, এ বৃষ্টি বোরো ধানের জন্যও বিরাট উপকার হবে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক কৃষিবিদ মো. তমিজ উদ্দিন খান বলেন, হাওর এলাকাসহ জেলাজুড়ে প্রায় ১ লাখ ২২ হাজার ২৩৫ হেক্টর জমিতে বোরো ধানের ফলন হয়। অল্প হলেও সঠিক সময়ে বৃষ্টি হয়েছে। বোরো ধানের জন্য এ বৃষ্টি স্বর্ণ। একইভাবে চা শিল্পের জন্যও সুখবর। কারণ, আর কয়েক দিনের মধ্যেই চা উৎপাদন শুরু হবার কথা।

পূর্ববর্তী সংবাদ পরবর্তী সংবাদ
সর্বশেষ সংবাদ
  • সর্বাধিক পঠিত