শিরোনাম:

৯ দিনের জন্য সারাদেশ থেকে বিচ্ছিন্ন ঢাকা

বরগুনায় ভোট কেন্দ্রে সংঘর্ষে ২ জন গুলিবিদ্ধ

৮ মাস পর বিশ্বে করোনায় সর্বনিম্ন মৃত্যু

প্যারাগুয়েকে হারিয়ে শেষ আটে আর্জেন্টিনা

লকডাউন থাকা সাত জেলায় ট্রেন থামবে না

১৫ বছর পর এই প্রথম…

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশিত : আগস্ট ১৬, ২০২০

শেয়ার করুন

ক্রীড়া ডেস্কঃ সোনারদেশ২৪:

বড্ড নিষ্ঠুর সময়। ফুটবল প্রেমিদের রীতিমত কাঁদাচ্ছে। ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর দেশে বসেছে ইউয়েফার সর্বোচ্চ আসর চ‌্যাম্পিয়নস লিগ। অথচ চ‌্যাম্পিয়নস লিগের ইতিহাসের সর্বোচ্চ গোলস্কোরার রোনালদোই নিজ দেশে খেলতে পারছেন না।

সময়ের আরেক সেরা লিওনেল মেসি। তাকে ছাড়া ফুটবল অকল্পনীয়। রেকর্ড ছয়বারের ব‌্যালন ডি অর জয়ী মেসিও নেই চ‌্যাম্পিয়নস লিগে। ভাবা যায়! ফুটবল বিশ্ব শেষ কবে এমন কিছু দেখেছিল? বর্ষ পঞ্জিকার পাতা উল্টে-পাল্টে জানা গেল ঠিক ১৫ বছর আগে চ‌্যাম্পিয়নস লিগের সেমিফাইনালে ছিলেন না মেসি ও রোনালদো।

সময়টা ছিল ২০০৪-০৫ আসর। এরপর প্রতিটি আসরের সেমিফাইনালে হয় মেসি ছিলেন, না হয় রোনালদো। দুইজনের শ্রেষ্ঠত্ব এতোটুকু পরিসংখ‌্যানেই কি স্পষ্ট নয়। শুক্রবার রাতে বার্সেলোনা শেষ আটের লড়াইয়ে জিততে পারেননি। বায়ার্ন মিউনিখ ৮-২ গোলে হারিয়েছে তাদের। এর আগে গত সপ্তাহে জুভেন্টাসের যাত্রা থামে শেষ ষোলোতে। পাশাপাশি ২০০৬-০৭-এর পর প্রথমবার শেষ চারে নেই স্প‌্যানিশ লিগের কোনো দল।

মেসি চারবার চ‌্যাম্পিয়নস ট্রফির শিরোপা জিতেছেন। তবে ২০১৪-১৫ এর পর একবারও শ্রেষ্ঠত্বের মুকুট পাননি। অন‌্যদিকে রোনালদো পাঁচবার এ শিরোপা জিতেছেন। চারবার রিয়ালের জার্সিতে, একবার ম‌্যানচেস্টার ইউনাইটেডের জার্সিতে। অথচ তারা কেউ এবার নেই। লিসবনের প্রতিটি রাত তাদের শূন‌্যতায় ভুগবে। ১৫ বছর পর তাদের ছাড়া ইউরোপিয়ান প্রতিযোগিতা তা কোনোভাবেই কল্পনা করা যায় না।

পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ
সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত