শিরোনাম:

ঝাড়বাতির সঙ্গে বিয়ে!

রাজকন্যা লতিফার অবিলম্বে মুক্তির দাবি জাতিসংঘের

অসহায়দের সহায়তায় ১০ কোটি টাকা অনুদান প্রধানমন্ত্রীর

মিসরের ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত বেড়ে ২৩

‘শিশুবক্তা’ রফিকুল ইসলাম ৪ দিনের রিমান্ডে

হিমবাহ ধসে ভারতে নিখোঁজ দেড় শতাধিক, ১৪ লাশ উদ্ধার

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশিত : ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২১

শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ সোনারদেশ২৪:

ভারতের উত্তরাখণ্ড রাজ্যে হিমালয় পর্বতমালার একটি হিমবাহ ধসে দেড় শতাধিক মানুষ নিখোঁজ রয়েছেন। আজ ৮ ফেব্রুয়ারি, সোমবার সকাল পর্যন্ত ১৪ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

গতকাল ৭ ফেব্রুয়ারি, রবিবার সকালে প্রবল বর্ষণের ফলে ধৌলিগঙ্গা নদীর পানি বাড়তে থাকে। রাত রাত ১১টার দিকে দিকে যোশীমঠে নন্দাদেবীর হিমবাহটি ধসে পড়ে। এসময় তীব্র গতিতে পানি এসে আছড়ে পড়ে চামোলি জেলার তপোবন এলাকার রেইনি গ্রামে অবস্থিত ঋষিগঙ্গা বিদ্যুৎ প্রকল্পের ওপর।

তুষারশীতল জল এবং বন্যায় ঘরবাড়িসহ তলিয়ে গেছে গোটা একটি গ্রাম। সেই সাথে আশেপাশের এলাকার আরো বহু ঘরবাড়ি ভাসিয়ে নিয়ে গেছে স্রোত। এদের মধ্যে জলবিদ্যুৎ প্রকল্পে কর্মরত শ্রমিক, নদীর কাছে জ্বালানি কাঠ কুড়াতে যাওয়া লোকজন ও গবাদিপশু চড়াতে যাওয়া রাখালদের অনেকেরই কোনো খোঁজ নেই। স্থানীয়রা ধারণা করছেন, জলের স্রোত তাদের ভাসিয়ে নিয়ে গেছে।

মৃতের সংখ্যা আরো বাড়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। ধারণা করা হচ্ছে, এই দুর্ঘটনায় শতাধিক মানুষের মৃত্যু হতে পারে। বর্তমানে ভারতীয় বিমান বাহিনী ও নৌবাহিনীর সদস্যরা উদ্ধারকাজে সহায়তা করছেন।

রেইনি গ্রামটির ওপর দিয়ে শুধু জলের স্রোত বয়ে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন উদ্ধারকারীরা। আর ওই গ্রামের বাসিন্দা সঞ্জয় সিং রানা বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে বলেছেন, ‘অনেক মানুষ নিখোঁজ রয়েছে। পানি এত দ্রুত এসেছে কেউ সাবধান হওয়ার সুযোগ পায়নি। আমরাও ভেসে যেতে পারতাম।’

ইতোমধ্যেই রাজ্যটির মুখ্যমন্ত্রী ত্রিবেন্দ্র সিং রাওয়াত মৃতদের পরিবারকে ৪ লাখ রুপি করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা দিয়েছেন। সেই সাথে আরো ২ লাখ রুপি করে ক্ষতিপূরণের দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তিনি গোটা পরিস্থিতির ওপর নজর রাখছেন বলে সংবাদে জানানো হয়েছে।

পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ
সর্বশেষ সংবাদ
  • সর্বাধিক পঠিত