আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ সোনারদেশ২৪:

করোনাভাইরাসের কারণে সৃষ্ট পরিস্থিতিতে অতি জরুরি সুরক্ষা সামগ্রীর আড়ালে হচ্ছে মাদক পাচার। হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও ফেস মাস্কের আড়ালে পাচার হচ্ছে মেথামফেটামিন বা মেথের মতো মাদক। অস্ট্রেলিয়ান পুলিশের কাছে বিষয়টি ধরাও পরেছে।

সিএনএন’এর খবরে বলা হয়, মে মাসের শুরুতে অস্ট্রেলিয়ান বর্ডার ফোর্সের (এবিএফ) সদস্যরা করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে ব্যবহারের জন্য অতিপ্রয়োজনীয় কিছু সামগ্রীর মাঝে লুকানো দুই কেজি মেথ খুঁজে পান।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এবিএফ কর্মকর্তা জন ফ্লেমিং বলেন, মাদক পাচারের জন্য অপরাধীরা দেশের যে কোনো স্থানে যাবে। অবাক হওয়া কিছু নয় যে, মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজারের মতো অতি দরকারি সামগ্রীকে তারা এ কাজ ব্যবহার করবে।

সাম্প্রতিক বছরগুলোতে অস্ট্রেলিয়ার কর্তৃপক্ষ বেশ কয়েকবার বড় আকারের মাদকের চালান আটক করে, যার আর্থিক মূল্য স্থানীয় মুদ্রায় বিলিয়ন ডলারের বেশি। এই সব চালানে মাদক লুকাতে বোতলকৃত নানা সামগ্রী থেকে তুষার গ্লোভস কোনটাই বাদ দেন না অপরাধীরা। গত বছর থাইল্যান্ড থেকে আসা স্টোরিও স্পিকার থেকে ৮২ কোটি ডলার মূল্যের মেথ উদ্ধারের পর চারদিকে হইচই পড়ে যায়।